ইন্টারনেট ব্যবহারের অধিকার এখন মানবাধিকার


2016-12-25 17:25:29 29 0

ইন্টারনেট ব্যবহারের অধিকার এখন মানবাধিকার। গত জুলাই মাসে জাতিসংঘের মানবাধিকার কাউন্সিল থেকে এই প্রস্তাব পাশ করা হয়। উক্ত প্রস্তাব অনুযায়ী প্রত্যেক মানুষের ইন্টারনেট ব্যবহারের অধিকার এবং স্বাধীনভাবে তাদের মতামত ইন্টানেটে প্রকাশ করার অধিকার রয়েছে। ইন্টারনেটে স্বাধীনভাবে মত প্রকাশের অধিকার একটি মৌলিক মানবাধিকার। জাতিসংঘের মাধবাধিকার কাউন্সিলের মোট ৪৭ সদস্য এই প্রস্তাবে সাক্ষর করে।

ইন্টারনেটে প্রবেশ একটা মানবাধিকার, এই ধারনার সাথে অনেকেই তাদের সমর্থন জানিয়েছেন, তার মধ্যে রয়েছে ওয়ার্ল্ড ওয়াইড ওয়েব (www) এর জনক স্যার টিম বার্নাস লি। টিম বার্নাস লি জানান, “এটা একটা ক্ষমতা প্রদান করার মত ব্যাপার যে মানুষ দ্রুতগতিতে ইন্টারনেট ব্যাবহার করবে এবং সেখানে থাকবেনা কোনো সীমানা”।

আমেরিকার একজন প্রতিনিধি জানান, এটিই জাতিসংঘের প্রথম কোন প্রস্তাবনা যার মা্ধ্যমে ইন্টারনেট জগতের মানবাধিকার সুরক্ষিত হবে বাস্তব জগতের মানবাধিকার রক্ষার অঙ্গিকারের মতই। তিউনেসিয়ান প্রতিনিধি মনশেভ বাটি জানান যে সামাজিক যোগাযোগরে মাধ্যমগুলোতে তীব্র আন্দোলনের ফলেই তিউনেসিয়ান সাবেক প্রেসিডেন্ট জায়িন ই আবিডাইন বেন আলি কে ২০১১ সালে উচ্ছেদ করা সম্ভব হয়েছিল। এছাড়া আরব বিশ্বে আন্দোলনের জন্য এসব সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমগুলোর ভূমিকা সবারই জানা। তাই অধিকার আদায় ও মানবাধিকার প্রতিষ্ঠার জন্য ইন্টারনেটে প্রবেশ এবং সোশ্যাল মিডিয়া বা সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমগুলোর ভূমিকা অনেক গুরুত্বপূর্ণ।

উল্লেখ্য যে, এই ধারনাটি প্রথম উত্থাপন করে ২০০৩ সালে জাতিসংঘের অংগ সংগঠন ইন্টারন্যাশনাল টেলিকমিউনিকেশন ইউনিয়ন (আইটিইউ)।


The Public Posts ইন্টারনেট ব্যবহারের অধিকার এখন মানবাধিকার


প্রসঙ্গ :
ইন্টারনেট

ফেসবুক মন্তব্য

মন্তব্য করুন

Name*

Web

Email*